বুধবার, ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০

মাথা ব্যথা কমাতে পাঁচ ধরনের পানীয়

প্রকাশিত: ০৫:২২ এএম, ফেব্রুয়ারি ২, ২০২১

মাথা ব্যথা কমাতে পাঁচ ধরনের পানীয়

হঠাৎ হওয়া মাথা ব্যথায় আরাম দিতে সহায়ক কয়েক ধরনের চা। স্বাস্থ্য-বিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদন অবলম্বনে মাথা ব্যথা কমাতে সক্ষম এমন কয়েকটি চা সম্পর্কে জানানো হল। ফিভারফিউ চা : এক ধরনের ফুলের গাছের পাতা। ডেইজি ফুলের মতো দেখতে এই গাছের পাতা মধ্যযুগে অ্যাসপিরিন ওষুধের মতো ব্যথা কমাতে ব্যবহার করা হত। এর ঔষধি উপাদান মাইগ্রেইনের কারণে হওয়া মাথা ব্যথা কমাতে সাহায্য করে। গরম পানিতে এই পাতা দিয়ে কিছুক্ষণ ফুটিয়ে নিন। চাইলে এতে দুধ ও মধু যোগ করে পান করতে পারেন। মাথা ব্যথা কমাতে প্রাচীনকাল থেকেই এই চা ব্যবহার করা হচ্ছে। ক্যামোমাইল ফুলের মতো দেখতে বলে অনেকে ফিভারফিউকে ক্যামোমাইল বলে ভুল করে। এদেশের বড় সুপার-শপ ও অনলাইনে এই চা-পাতা প্যাকেজাত অবস্থায় পাওয়া যায়। আদা চা : আদা চা আরেকটি আরোগ্যদায়ক পানীয় যা ধমনী শিথিল করার মাধ্যমে মস্তিষ্কের রক্ত সঞ্চালন বাড়ায়। এক ইঞ্চি পরিমাণ আদা কুঁচি করে দুই কাপ পানিতে ফুটিয়ে এক কাপ করতে হবে। এতে এক চা-চামচ মধু যোগ করে পান করুন। এটা মাথা ব্যথা কমাতে খুব ভালো কাজ করে। কারণ এতে আছে প্রদাহনাশক উপাদান। এই উপাদান আরাম লাভে ও ব্যথা কমাতে সহায়তা করে। পুদিনা চা : পুদিনা কড়া ঘ্রাণ ও ঔষধি গুণ সমৃদ্ধ। যা পেশি ও স্নায়ুকে আরাম দিতে পারে। ফলে হঠাৎ হওয়া মাথা ব্যথা কমাতেও সহায়তা করে। বিশ্বাস করা হয়, পুদিনার চা অন্ত্র সুস্থ রাখার পাশাপাশি অস্বস্তি কমাতে ভূমিকা পালন করে। লেবুর পানি : মাথা ব্যথা সারাতে কার্যকার পানীয় হল লেবু পানি। এটা কেবল ক্ষণস্থায়ী মাথা ব্যথা নয় বরং সব রকমের মাথা ব্যথার ক্ষেত্রেই ইতিবাচক প্রভাব রাখে। পানি গরম করে তাতে অর্ধেকটা লেবুর রস যোগ করুন। এটা শরীর থেকে বিষাক্ত উপাদান দূর করতে ও পেটের সমস্যা থেকে হওয়া মাথা ব্যথা দূর করতে সহায়তা করে।
Link copied!