বুধবার, ১৭ এপ্রিল, ২০২৪, ৪ বৈশাখ ১৪৩১

তিনবার বদলির আদেশ দিলেও মানছেন না দেবীদ্বারের ইউএনও

প্রকাশিত: ১০:৩০ এএম, মার্চ ২১, ২০২৩

তিনবার বদলির আদেশ দিলেও মানছেন না দেবীদ্বারের ইউএনও

কুমিল্লার দেবীদ্বার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) হিসেবে যোগদান করার পর এ পর্যন্ত তিনবার বদলির আদেশ দেওয়া হয়েছে ডেজী চক্রবর্তীকে। কিন্তু চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের দেওয়া প্রতিটি আদেশকে অমান্য করে অজানা কারণে দেবীদ্বারের ইউএনও হিসেবে বহাল রয়েছেন ডেজী চক্রবর্তী। আদেশের প্রজ্ঞাপনে ডেজী চক্রবর্তীকে দুইবার খাগড়াছড়ির মাটিরাঙ্গা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এবং একবার ফেনীর দাগনভূঞা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে যোগদান করার জন্য বলা হয়। চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়ের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (সার্বিক) ড. প্রকাশ কান্তি চৌধুরী স্বাক্ষরিত এসব প্রজ্ঞাপন দেওয়া হয়। জানা গেছে, গত বছরের ১ ডিসেম্বর দেবীদ্বার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে যোগদান করেন ডেজী চক্রবর্তী। যোগদানের পরই নানা বিষয়ে বিতর্কিত হয়ে খবরের শিরোনাম হন এই কর্মকর্তা। তার বিরুদ্ধে সরকারি রাস্তা ইজারা দেওয়াসহ বেশকিছু অভিযোগ উঠেছে। চলতি বছরের ৭ ফেব্রুয়ারি ডেজী চক্রবর্তীকে দেবিদ্বার থেকে বদলি হয়ে খাগড়াছড়ির মাটিরাঙ্গা ও ৭ মার্চ দ্বিতীয়বারের বদলির আদেশে তাকে ফেনীর দাগনভূঞা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হিসেবে যোগদানের জন্য বলা হয়। কিন্তু আদেশ পেয়েও অজ্ঞাত কারণে দেবীদ্বারেই থেকে যান ডেজী চক্রবর্তী। সবশেষ গত শুক্রবার (১৭ মার্চ) তৃতীয়বারের মতো বদলির আদেশ পাঠানো হয় দেবীদ্বার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাকে। কিন্তু সোমবার (২০) মার্চ পর্যন্ত দেবীদ্বারেই অফিস করতে দেখা যায় ডেজী চক্রবর্তীকে। এ বিষয়ে জানতে চাইলে ডেজী চক্রবর্তী বলেন, বদলির আদেশের পর আমাদেরকে অবমুক্ত করা না হলে আমরা কর্মস্থল ত্যাগ করতে পারি না। অবমুক্ত করা হলে আমি দেবীদ্বার ত্যাগ করে নতুন কর্মস্থলে যোগদান করবো। তবে এ বিষয়ে কুমিল্লা জেলা প্রশাসনের কয়েকজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার মুঠোফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করলে কেউ কল রিসিভ করেননি। এমনকি খুদে বার্তা দিলেও কেউ উত্তর দেননি। চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনারের কার্যালয়ের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (সার্বিক) ড. প্রকাশ কান্তি চৌধুরী বলেন, আমি যতটুকু জানি এটা দুয়েকদিনের মধ্যে হয়ে যাবে। ডিসি সাহেব উনাকে হয়তো রিলিজ করে দেবেন।
Link copied!